শুক্রবার,

১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১,

২ আশ্বিন ১৪২৮

পরীক্ষামূলক প্রকাশ

শুক্রবার,

১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১,

২ আশ্বিন ১৪২৮

Radio Today News

আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলায় বাংলাদেশের অংশগ্রহণ

চীন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০৩:০৭, ৯ সেপ্টেম্বর ২০২১

আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলায় বাংলাদেশের অংশগ্রহণ

ছবি: রেডিও টুডে

ডিজিটাল ভবিষ্যতের সূচনা করে সেবার উন্নয়ন ত্বরানিত করা এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে চীনের বেইজিংয়ে অনলাইন এবং অফলাইনে অনুষ্ঠিত হয়েছে চীন আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলা-২০২১। চীন আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলায় বাংলাদেশের দুটি প্যাভিলিয়ন অংশগ্রহণ করে।
 
গণপ্রজাতন্ত্রী চীনের বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এবং বেইজিং পৌর জনগণের সরকারের যৌথ উদ্যেগে, এই বছর চীন আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলা ২ থেকে ৭ সেপ্টেম্বর বেইজিংয়ে অবস্থিত চায়না ন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টার এবং শৌগাং ইন্ডাস্ট্রি সার্ভিস পার্কে প্রায় এক লাখ ত্রিশ হাজার বর্গমিটার জায়গা জুড়ে অনুষ্ঠিত হয়। উদ্ভাবনী অনুষ্ঠানে চীনের প্রেসিডেন্ট শি চিনপিং ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভাষণ দেন।

বেইজিংয়ে বাংলাদেশ দূতাবাসের মিনিস্টার ও ডেপুটি চীফ মিশন ডক্টর মুহম্মদ নজরুল ইসলাম এবং কমার্শিয়াল কাউন্সিলর মোহাম্মদ মনসুর উদ্দিন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অংশ নেন। তারা দুটি বাংলাদেশি প্যাভিলিয়নসহ প্রদর্শনী হল পরিদর্শন করেন।

দূতাবাসের কর্মকর্তা গণ এই মেলায় অংগ্রহণ নিয়ে বলেন, চীন আন্তর্জাতিক সেবা বাণিজ্য মেলা সেবা খাতে একটি গুরুত্বপূর্ণ এবং বৃহত্তম এক্সপো। বিশ্বব্যাপী মহামারী পরিস্থিতির কারণে, আমাদের কোম্পানী গুলো চীনে আসতে পারেনি। দূতাবাসের অংশগ্রহণে আমরা আমাদের বাণিজ্য, সংস্কৃতি, পর্যটন এবং সর্বপরি বাংলাদেশকে ব্র্যান্ডিং করার জন্য আরও সুযোগ সন্ধানের চেষ্টা করছি।


তারা প্রত্যাশা করেন, এই মেলাতে অংশগ্রহণের ফলে চীনে বাংলাদেশি পণ্যের বাজার সৃষ্টি হবে। চীনের সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্য আরো বাড়বে। পণ্য আমদানী ও রপ্তানীতে ভারসাম্য রক্ষা হবে। বেইজিংয়ে বাংলাদেশ দূতাবাস চীনের সাথে বাংলাদেশের বাণিজ্য বৃদ্ধিতে কাজ করছে।

বাংলাদেশ প্যাভিলিয়ন গুলোতে প্রদর্শিত হয়েছে পাট জাত হস্ত শিল্পের আকর্ষণীয় পণ্য সামগ্রী, চামড়ার তৈরি ব্যাগ, কাপড় এবং মেয়েদের অলংকার সামগ্রী সহ অন্যান্য পণ্য সামগ্রী। মেলাতে বাংলাদেশি পণ্যের প্রতি চীনা নাগরিক সহ অন্যান্য দেশের নাগরিকদের আগ্রহ দেখা যায়। তাছাড়া বাংলাদেশি স্টল গুলোতে ছিল ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড়।

চীন কোভিড-১৯ মহামারীর মধ্যে চলতি বছর নির্ধারিত ইভেন্টটি আয়োজনের মাধ্যমে বিশ্ব সম্প্রদায়ের সাথে ব্যাপক সম্প্রসারণ এবং বৃদ্ধির সুযোগ ভাগ করে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি প্রদর্শন করেছে। বিশ্ব বাজারে ক্রেতা-বিক্রেতাদের মধ্যে সর্বশেষ পরিষেবা গুলি প্রদর্শনের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ প্ল্যাটফর্ম প্রদান করে।

বাংলাদেশ, জার্মান, জাপান, সুইজারল্যান্ড, ব্রাজিল, ফিলিপাইন, আর্জেন্টিনা, শীলংকা, পাকিস্তান, আফ্রিকান দেশ সহ অন্যান্য দেশ মেলাতে অংশগ্রহণ করে। এছাড়া হুয়াওয়ে, ক্যানন, ইপসন, জেডি সহ অন্যান্য বড় কোম্পানিগুলো এই মেলাতে অংশগ্রহন করে।


 

রেডিওটুডে নিউজ/ইকে

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের