শুক্রবার,

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২,

১৫ আশ্বিন ১৪২৯

শুক্রবার,

৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২,

১৫ আশ্বিন ১৪২৯

Radio Today News

সিনিয়র বিহীন ক্রিকেটার নিয়ে এবারের টাইগার সম্ভাব্য একাদশ

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৭:৪২, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২

সিনিয়র বিহীন ক্রিকেটার নিয়ে এবারের টাইগার সম্ভাব্য একাদশ

ফাইল ছবি

অনেকটা ব্যস্ততার মধ্য দিয়েই সময় কেটে যাচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের। একের পর এক সিরিজ, টুর্নামেন্ট মিলিয়ে পার করছে বেশ ব্যস্ত সময় সূচি। আসন্ন ত্রিদেশীয় সিরিজ ও বিশ্বকাপকে সামনে রেখে আরো একটি দ্বিপাক্ষিক সিরিজ আয়োজন করেছে বিসিবি। যেখানে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ হিসেবে থাকছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

নিয়মিত অধিনায়ক সাকিবকে পাচ্ছে না সেখানে! তবে কেমন হতে পারে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সেরা একাদশ? 

একের পর এক সিরিজের যেন শেষই হচ্ছে না বাংলাদেশ দলের জন্য। খেলেই চলছে টাইগাররা। শুধু যেটা আসছে না সেটা 'জয়'! বাকি সবকিছুই যেন নিয়মিতই হয়ে চলছে টাইগারদের।

বিশ্বকাপকে সামনে রেখে বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড়রা চেয়েছিল বাইরের দেশে প্র্যাকটিস করতে। সে কারণে দুবাইয়ের মাটিতে যাওয়ার সিদ্ধান্ত টাইগারদের। সেখান থেকে তাদের প্রস্তাব দেয়া হয় বাংলাদেশের সঙ্গে দুটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের, তাতে রাজি হয়ে যায় বিসিবি। যেখানে প্রথম টি-টোয়েন্টি অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৫ সেপ্টেম্বর এবং দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর।

তবে এখানে কেমন হতে পারে বাংলাদেশ দলের একাদশ? যেহেতু অধিনায়ক সাকিব আল হাসান নেই তাই দল টা সাজবে একটু ভিন্ন রকম করেই! সকল সিনিয়রদের ছাড়া হতে যাচ্ছে এক আলাদা রকমের যাত্রা।

যেখানে অধিনায়কত্ব পালন করবেন উইকেটকিপার নুরুল হাসান সোহান। তার নেতৃত্বে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে ওপেনিং এর দায়িত্ব পালন করবেন মেহেদী হাসান মিরাজ এবং সাব্বির রহমান। যেহেতু তিন নাম্বার পজিশনে নেই অধিনায়ক। এই জায়গাতে তাই খেলার সবচেয়ে বেশি সম্ভাবনা রয়েছে নাজমুল হোসেন শান্তর। যেহেতু শ্রীধরন শ্রীরামের চাওয়া খেলোয়ারদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন নাজমুল হোসেন শান্ত। স্বাভাবিকভাবেই তাই সাকিবের অনুপস্থিতিতে মাঠে দেখা যাবে তাকে। সৌম্যকে খেলানোর সম্ভবনাও রয়েছে, তবে সেটা সামান্যই।

৪ নম্বর পজিশনে ব্যাটিং করবেন লিটন দাস, মুশফিকের স্থলাভিষিক্ত করা হয়েছে তাকে। আরেক সিনিয়র মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের ৫ নম্বর পজিশনে ব্যাটিং করতে পারেন অধিনায়ক নুরুল হাসান নিজেই। সে ক্ষেত্রে ৬ নম্বরে ব্যাটিং করতে দেখা যাবে আফিফকে।

সাত নম্বর পজিশনে নিজের ফিনিশারের দায়িত্বটা দারুণভাবে পাকা করে নিয়েছেন মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। সে ক্ষেত্রে আট নম্বরে ব্যাটিং করতে দেখা যেতে পারে মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন কে।

নিশ্চিতভাবেই দুবাইয়ের মাটিতে স্পেশালিস্ট দুজনের বেশি ফাস্ট বোলার একাদশে নেয়া যাবে না। সেক্ষেত্রে হয়তো হাছান মাহমুদ এবার সুযোগ পেতে পারেন, তার সঙ্গী হতে পারেন মোস্তাফিজুর রহমান। যদি অন্যদের যাচিয়ে দেখতে চায় অধিনায়ক সেটা হতে পারে দারুন তবে স্পেশালিস্ট স্পিনার হিসেবে দলে থাকতে পারেন নাসুম।

এরকম একাদশ নিয়ে মাঠে নামার সম্ভাবনা রয়েছে বাংলাদেশের। পরিসংখ্যান বলছে সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটে এর আগে দুবাইয়ের মাটিতে কখনোই জয়ের দেখা পায়নি বাংলাদেশ। এই দুটি ম্যাচ যে তাই অনেক কঠিনই হতে চলছে বাংলাদেশের জন্য, সেটা নিশ্চিত।

এক নজরে দেখে নেয়া যাক বাংলাদেশের পুর্নাঙ্গ স্কোয়াড -

নুরুল হাসান সোহান দায়িত্ব পালন করবেন অধিনায়কত্বের ও উইকেটের পেছন সামলানোর। তার সঙ্গী হিসেবে আরও থাকছেন, সাব্বির রহমান, মেহেদী হাসান মিরাজ, আফিফ হোসেন, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, লিটন দাস, তাসকিন আহমেদ, এবাদত হোসেন, হাসান মাহমুদ, ইয়াসির আলী রাব্বি, মুস্তাফিজুর রহমান, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, নাজমুল হোসেন শান্ত, নাসুম আহমেদ, শরিফুল ইসলাম, সৌম্য সরকার এবং রিশাদ হোসেন।

রেডিওটুডে নিউজ/এসবি

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের