রোববার,

২৯ জানুয়ারি ২০২৩,

১৬ মাঘ ১৪২৯

রোববার,

২৯ জানুয়ারি ২০২৩,

১৬ মাঘ ১৪২৯

Radio Today News
bangas biscuit

কর্ণফুলী নদীতে বঙ্গবন্ধু টানেলের প্রথম টিউব উদ্বোধন আগামীকাল

রেডিওটুডে রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৪:০৮, ২৫ নভেম্বর ২০২২

কর্ণফুলী নদীতে বঙ্গবন্ধু টানেলের প্রথম টিউব উদ্বোধন আগামীকাল

চট্টগ্রামে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান টানেলের দক্ষিণ প্রান্তের টিউবের নির্মাণকাজ পুরোপুরি শেষ হয়েছে। আগামীকাল শনিবার সকাল ১০টায় সেতু বিভাগের অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যোগ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দক্ষিণ প্রান্তের সুড়ঙ্গ নির্মাণকাজের সমাপ্তি ঘোষণা করবেন।

টানেলের দুটি সুড়ঙ্গ বা টিউবের মধ্যে একটি দক্ষিণে, অন্যটি উত্তরে। দুই সুড়ঙ্গের সবচে জটিল তিনটি সংযোগপথের কাজও শেষ হয়েছে।

মূল টানেলের সঙ্গে পশ্চিম ও পূর্ব প্রান্তে ৫ দশমিক তিন পাঁচ কিলোমিটার সংযোগ সড়ক তৈরি করা হচ্ছে। টানেলের দৈর্ঘ্য ৩ দশমিক তিন দুই কিলোমিটার।

এখন পর্যন্ত টানেল নির্মাণকাজের অগ্রগতি ৯৪ শতাংশ। শতভাগ কাজ শেষ হতে জানুয়ারি পেরিয়ে যাবে বলে জানিয়েছেন প্রকল্প পরিচালক মোহাম্মদ হারুনুর রশিদ। 

প্রসঙ্গত, ১০ হাজার ৩৭৪ কোটি টাকা ব্যয়ে চট্টগ্রামের পতেঙ্গায় নদীর তলদেশে এই টানেল নির্মিত হয়েছে। দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে নদীর তলদেশে নির্মিত এটিই প্রথম টানেল।

কর্ণফুলীর দুই তীরকে সংযুক্ত করে চীনের সাংহাই শহরের আদলে ‘ওয়ান সিটি টু টাউন’ গড়ে তোলার লক্ষ্যে টানেল প্রকল্প গ্রহণ করে বর্তমান সরকার।

পতেঙ্গা থেকে কর্ণফুলীর অপর প্রান্তে আনোয়ারা পর্যন্ত দুই টিউব সংবলিত মূল টানেলের দৈর্ঘ্য ৩ দশমিক ৩২ কিলোমিটার। টানেল টিউবের দৈর্ঘ্য ২ দশমিক ৪৫ কিলোমিটার এবং ভেতরের ব্যাস ১০ দশমিক ৮০ মিটার। নদীর এক প্রান্ত থেকে টানেলের ভেতর দিয়ে অপর প্রান্তে পৌঁছাতে সর্বোচ্চ ৬ মিনিট সময় লাগতে পারে বলে প্রকল্প সূত্র জানিয়েছে। 

২০১৯ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম টানেল টিউবের বোরিং কাজ উদ্বোধন করেন। প্রায় তিন বছর পর প্রধানমন্ত্রী সফলভাবে স্থাপন সম্পন্ন হওয়া প্রথম টিউবের উদ্বোধন করতে যাচ্ছেন। 

রেডিওটুডে নিউজ/মুনিয়া

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের