বুধবার,

৩০ নভেম্বর ২০২২,

১৬ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

বুধবার,

৩০ নভেম্বর ২০২২,

১৬ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

Radio Today News

মেসি নৈপুণ্যে জ্যামাইকাকে হারিয়েছে আর্জেন্টিনা

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:০৬, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

মেসি নৈপুণ্যে জ্যামাইকাকে হারিয়েছে আর্জেন্টিনা

মেসির দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে জয় পেয়েছে আর্জেন্টিনা

আবারো মেসির জাদু দেখলো ফুটবল বিশ্ব, আর্জেন্টাইন এই ক্ষুদে জাদুকরের দুর্দান্ত নৈপুণ্যে অসাধারন এক জয় পেয়েছে আলবিসেলেস্তেরা।

বিশ্বকাপের আগে আপাতত আর কোনো ম্যাচ নেই আর্জেন্টিনার, আলবিসেলেস্তেদের এটাই ছিল শেষ ম্যাচ, তাই একটু সতর্কতার সঙ্গে শুরু করে তারা। দলের প্রাণভোমরা ও অধিনায়ক লিওনেল মেসিকে বিশ্রাম দেয়া হয় প্রথম অর্ধে। তার বদলে মাঠে নামানো হয় জুলিয়ান আলভারেজকে। দু'বারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের এগিয়ে দেয়া প্রথম গোলটি করেন তিনি, লাউতারো মার্টিনেজ থেকে বল নিয়ে অসাধারণ এক গোলে আর্জেন্টিনাকে লিড এনে দেন ১-০ ব্যবধানে।

কিছুক্ষণ পর আবার এক দারুণ সুযোগ পান আলভারেজ, তবে সামান্য ভুলের জন্য সুযোগটা মিস হয়ে যায় তার। বল দখলের লড়াইয়ে দারুণভাবে এগিয়ে যেতে থাকে তারা, বেশ কিছু সুযোগ তৈরি করে তবে গোলের দেখা পায়নি তারা। তাতে করে প্রথমার্ধ শেষে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে থেকেই বিরতিতে যায় আর্জেন্টিনা।

বিশ্বকাপের জন্য দল ঘোষণার আগে প্রীতি ম্যাচের যাত্রা শেষ আর্জেন্টিনার। এবার আলবিসেলেস্তেদের মূল লক্ষ্য কাতারে বিশ্বকাপ জয় করার, ১৯৮৬ সালের পর আর কখনো বিশ্বকাপ ছুয়ে দেখা হয়নি তাদের। মেসির স্বপ্ন ম্যারাডোনার মত দেশকে আনন্দে ভাসানোর। ২০১৪ তে শিরোপার অনেক কাছে গিয়েও স্বপ্নভঙ্গ হয়েছিল তাদের। এখন দেখার পালা, ৩৬ বছর পর মেসিরা পারেন কিনা নিজেদের সপ্ন পুরন করতে!

বিরতির পর ৫৬তম মিনিটে মাঠে নামেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক লিওনেল মেসি। শুধু তিনি একাই নন, আরও বেশ কয়েকজনকে বদলিয়ে মাঠে নামান দলের কোচ লিওনেল স্কালোনি। মূলত দলের খেলোয়ারদেরকে পরীক্ষা করাটাই ছিল তার মূল লক্ষ্য। ম্যাচের ৬৬তম মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করার সুযোগ আসে আর্জেন্টিনার সামনে তবে সেটাকে কাজে লাগাতে পারেনি তারা। 

নির্ধারিত সময়ের শেষ মুহূর্ত যখন পেরিয়ে যাচ্ছিল ম্যাচ তখন নিজের চিরচেনা জাদু দেখান আর্জেন্টাইন খুদে জাদুকর মেসি। ৮৬ মিনিটে খানিকটা দূরত্ব থেকে অসাধারণ এক গোল করেন তিনি। লো সেলসোর পাস থেকে করা এটি তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ৮৯ তম গোল। নির্ধারিত সময়ের খেলা শেষ হওয়ার আগে ব্যবধান ৩-০ করেন মেসি।

ডি-বক্সের সামান্য বাইরে ফ্রি-কিক পায় আর্জেন্টিনা, সেখান থেকে দারুণ এক গোল করে ব্যবধান ৩-০ করেন মেসি। এই গোলোর মধ্য দিয়ে ফ্রি কিক গোল এর তালিকায় রোনালদোকে টপকে গেলেন মেসি। এটি ছিল তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের ৯০ তম গোল। এরপর আর কোন গোল হলে ৩-০ ব্যবধানে জয় পায় আর্জেন্টিনা। এতে করে নিজেদের অপরাজিত থাকার যাত্রাটা এগিয়ে যায় ৩৫ তম ম্যাচ পর্যন্ত। বিশ্বরেকর্ড গড়তে হলে আর মাত্র দুটি ম্যাচে অপরাজিত থাকতে হবে তাদের। তিন ম্যাচ অপরাজিত থাকলে ভেঙে দেবে তারা ইতালির ৩৭ ম্যাচ অপরাজিত থাকার রেকর্ড।

রেডিওটুডে নিউজ/এসবি

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের