মঙ্গলবার,

২৮ মে ২০২৪,

১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

মঙ্গলবার,

২৮ মে ২০২৪,

১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

Radio Today News

সুনেরাহর সঙ্গে থাকেন শরিফুল রাজ, পরীমনির অভিযোগ

বিনোদন ডেস্ক

প্রকাশিত: ০১:২০, ৩১ মে ২০২৩

Google News
সুনেরাহর সঙ্গে থাকেন শরিফুল রাজ, পরীমনির অভিযোগ

সুনেরাহ, শরিফুল রাজ ও পরীমনি

মঙ্গলবার দিনজুড়েই সোশ্যাল দুনিয়া বেশ সরগরম ছিল শরিফুল রাজের সঙ্গে সুনেরাহ বিনতে কামাল, তানজিন তিশা ও নাজিফা তুষির স্ক্যান্ডাল ভাইরাল হওয়ার পর থেকে। শরিফুল রাজ জানিয়েছেন তার ফেসবুক আইডি হ্যাকারদের কবলে কবলে ছিল বলেই। এদিকে বিষয়টি নিয়ে সুনেরাহর অভিযোগ, রাজের স্ত্রী পরীমণি ভিডিও ও ছবিগুলো ফেসবুকে দিয়েছেন। এমন অভিযোগে ক্ষেপেছেন পরিমণি। পাল্টা অভিযোগ জানিয়ে সংবাধ্যমকে তিনি বলেন, তার স্বামী রাজ ১০ দিন ধরে তার সঙ্গেই থাকছে না। থাকছেন সুনেরাহর সঙ্গে!

পরী বলেন, "আমার জামাই রাজ তো গেল ১০ দিন ধরে আমার সঙ্গেই থাকে না। থাকে ওই মেয়ের সঙ্গে। রাজ তো আমার কাছেই নেই, ওর ফোন আমার কাছে আসবে কই থেকে।"

এরপর তিনি বলেন, "রাজ যেহেতু কদিন ধরে ওর কাছে। রাজের ফোনও ওর কাছে। রাজ কি আমার সঙ্গে থাকে যে, আমি তার ফোন থেকে দেব ছবিগুলো?"

পরীমণি আরও বলেন, "এই মেয়ে কী চায়, বেয়াদব। এত নিচু কাজ কেন করতে যাব আমি। ওর নাকি এত বেস্ট ফ্রেন্ড, তাহলে বিযের পর কেন যোগাযোগ রাখেনি। হঠাৎ করে এখন আবার আমার জামাইকে কেড়ে নিচ্ছে কেন। এখন তো আমার তাই মনে হচ্ছে। সব নাটের গুরু এই মেয়ে। না হলে ভোররাতে স্ট্যাটাস দিয়ে দিলো, ১০-১৫ মিনিটের মাথায় সেটা ডিলিটও হয়ে গেল।"

শেষে পরী বলেন, "এগুলো কোনো প্ল্যান না মনে করছেন। এই মেয়েসহ একটা চক্র কাজ করছে আমার সংসার ভাঙার জন্য। আমি কি আইডি চালাই? শুধু শুধু কেউ যদি আমার দিকে আঙুল তোলে আমি কিন্তু মামলা দিয়ে দেব। কেউ যেন প্রমাণ না নিয়ে আমার সঙ্গে কথা না বলে। সুনেরাহ মেয়েটা আমার নামে বলছে, ওর তো কোনো রাইটই নেই এসব বলার।"

এর আগে মঙ্গলবার রাত দেড়টার দিকে হঠাৎ ফাঁস হয় শরিফুল রাজের স্ক্যান্ডাল। রাজের আইডি থেকে দেখা যায় সুনেরাহ বিনতে কামাল, তানজিন তিশা ও নাজিফা তুষির সঙ্গে আপত্তিকর অবস্থার বেশ কিছু ছবি ও ভিডিও ক্লিপ।

ছবিগুলোতে দেখা গেছে সুনেরাহর সঙ্গে ভিডিও কলে কথা বলছেন রাজ। একটি ছবিতে সুনেরাহকে জড়িয়ে ধরে রাজকে হাসতে দেখা যাচ্ছে। একটি ভিডিওতে রাজ সুনেরাহকে জিজ্ঞেস করেন, কী করলা? সুনেরাহর কণ্ঠে বলতে শোনা যায়, তোমাকে চুমু খেয়েছিসহ আরও অশ্লীল কিছু বাক্য।

তবে এসব ঘটনার শেষটা কোন দিকে যায় সেটাই এখন দেখার বিষয়। 

রেডিওটুডে নিউজ/এসবি

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের