সোমবার,

১৫ এপ্রিল ২০২৪,

২ বৈশাখ ১৪৩১

সোমবার,

১৫ এপ্রিল ২০২৪,

২ বৈশাখ ১৪৩১

Radio Today News

ইউক্রেনে ন্যাটো সেনা মোতায়েন করলে বিপর্যয়কর পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে: রুশ সিনেটর

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশিত: ২১:১৭, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

আপডেট: ২১:১৯, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

Google News
ইউক্রেনে ন্যাটো সেনা মোতায়েন করলে বিপর্যয়কর পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে: রুশ সিনেটর

রাশিয়ার জাতীয় সংসদের উচ্চকক্ষ ফেডারেশন কাউন্সিলের ভাইস স্পিকার কনস্টান্টিন কোসাচেভ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন, ইউক্রেনে মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো সামরিক জোটের সেনা মোতায়েন করা হলে তাকে রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা বলে বিবেচনা করা হবে এবং এতে বিপর্যয়কর পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে।

গতকাল (মঙ্গলবার) ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রন ইউক্রেনে ন্যাটো জোটের সেনা পাঠানোর বিষয়ে সামাজিক মাধ্যম টেলিগ্রামে একটি পোস্ট দেয়ার পর এসব কথা বলেছেন কোসাচেভ। তিনি সতর্ক করে বলেন, ফরাসি প্রেসিডেন্টের এই দৃষ্টিভঙ্গি একটা বিপর্যয়কর পরিস্থিতি সৃষ্টির ঝুঁকি তৈরি করেছে। রুশ সিনেটর সুস্পষ্ট করে বলেন, ফরাসি প্রেসিডেন্ট যে প্রস্তাব দিয়েছেন ন্যাটো যদি তা বাস্তবায়নের পদক্ষেপ নেয় তাহলে মস্কো মোটেই সহ্য করবে না।

কোসাচেভ বলেন, ইউক্রেন যুদ্ধে ন্যাটো সেনারা অনেক আগে থেকেই জড়িত তবে ইউক্রেনের মাটিতে যদি ন্যাটো জোটের সেনা মোতায়েন করা হয় তাহলে তাকে প্রকাশ্য শত্রুতায় জড়িয়ে পড়া এবং রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা বলে বিবেচনা করা হবে।

এর আগে ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ একইভাবে ফরাসি প্রেসিডেন্টের বক্তব্যের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ফরাসি প্রেসিডেন্টের মতামত অনুযায়ী যদি তারা কোনো পদক্ষেপ নেয় তাহলে এটি মস্কোর বিরুদ্ধে ন্যাটো জোটের সরাসরি সংঘাত শুরু বলে বিবেচনা করা হবে, তখন যুদ্ধ এড়ানো সম্ভব হবে না।

রেডিওটুডে নিউজ/আনাম

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের