শনিবার,

১৮ মে ২০২৪,

৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

শনিবার,

১৮ মে ২০২৪,

৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

Radio Today News

তিন শতাধিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, যেকোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত ইসরাইল

রেডিওটুডে রিপোর্ট

প্রকাশিত: ২২:০৪, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

আপডেট: ২২:০৫, ১৪ এপ্রিল ২০২৪

Google News
তিন শতাধিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, যেকোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত ইসরাইল

ইরাক এবং ইয়েমেন থেকে ইসরাইলে তিন শতাধিক ড্রোন এবং ক্ষেপণাস্ত্র হামলা করা হয়েছে বলে দাবি করেছে ইসরাইল। এমন তথ্য জানিয়ে দেশটির পক্ষ থেকে আরও দাবি করা হয়েছে, ওই ড্রোন, ক্ষেপণাস্ত্রগুলোর বেশির ভাগই আটকে দেওয়া হয়েছে এবং ইসরাইল যেকোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত’ রয়েছে।

রোববার বিকেলে এমন তথ্য জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম আলজাজিরা। তবে তাৎক্ষণিক হতাহতের কোনো তথ্য জানানো পারেনি।

ইরানের বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যমটি জানিয়েছে, এক  এপ্রিল সিরিয়ায় ইরানের কনস্যুলেটে ইসরাইলি হামলার প্রতিক্রিয়া হিসেবে এই হামলা চালানো হয়েছে। ইরানের মতে, হামলার বিষয়টি আপাতত সমাপ্ত মনে করা যেতে পারে’।

এদিকে তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হাকান ফিদান ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ানের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন বলেও জানিয়েছে আল জাজিরা।

আমির-আব্দুল্লাহিয়ান তুর্কি মন্ত্রীকে বলেছেন, ইসরাইলের বিরুদ্ধে ইরানের প্রতিশোধমূলক অভিযান শেষ হয়েছে এবং দেশটি আক্রমণ না করা পর্যন্ত অন্য পদক্ষেপ নেবে না।

ফিদান বলেছেন, তার সরকার এই অঞ্চলে আর কোনো উত্তেজনা চায় না। 

এদিকে রেড ক্রসের ইন্টারন্যাশনাল কমিটির আঞ্চলিক পরিচালক ফ্যাব্রিজিও কার্বোনি গাজার মানবিক সঙ্কট এবং সাহায্য কর্মীদের মুখোমুখি হওয়া ঝুঁকি নিয়ে আলোচনা করেছেন। 

তার মতে, গাজার মানবিক পরিস্থিতি বিপর্যয়কর পর্যায়ে পৌঁছেছে, কারণ যুদ্ধ এখন তার সপ্তম মাসে। ভূখণ্ডের জনসংখ্যা দুর্ভিক্ষের আসন্ন ঝুঁকিতে এবং স্বাস্থ্যসেবা পরিষেবা সম্পূর্ণ ধসের ঝুঁকিতে থাকায় ফিলিস্তিনিরা মোকাবেলা করতে লড়াই করছে।

একই সঙ্গে সাহায্য কর্মীরাও ক্রমবর্ধমান বিপদের সম্মুখীন এবং স্ট্রিপের পরিস্থিতি আরও খারাপ হওয়ার উদ্বেগ রয়েছে বলেও মন্তব্য করেছেন ফ্যাব্রিজিও বিশ্বনেতাদের প্রতিক্রিয়া।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি এক্স-এ লিখেছেন, ইরানের কর্মকাণ্ড সমগ্র অঞ্চল এবং বিশ্বকে হুমকির মুখে ফেলেছে, ঠিক যেমন রাশিয়ার পদক্ষেপগুলো একটি বৃহত্তর সংঘাতের হুমকি দিচ্ছে। 

জেলেনস্কি বলেছেন, সন্ত্রাস ছড়ানোর ক্ষেত্রে দুই সরকারের মধ্যে সুস্পষ্ট সহযোগিতাকে অবশ্যই দৃঢ় ও ঐক্যবদ্ধ প্রতিক্রিয়ার মুখোমুখি হতে হবে। 

অপরদিকে ওমানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এই অঞ্চল এবং এর জনগণকে যুদ্ধের ঝুঁকি থেকে রক্ষা করতে সংযম অনুশীলনের গুরুত্বের ওপর জোর দিয়েছে। এটি আন্তর্জাতিক আইন মেনে চলার এবং আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তা বজায় রাখার জন্য নিরাপত্তা পরিষদের দায়িত্ব পালনের প্রয়োজনীয়তার আহবান জানিয়েছে ওমান।

ইরাকের রাষ্ট্রপতি আবদেল লতিফ রশিদ এই অঞ্চলে ‘উত্তেজনা হ্রাস’ করার আহবান জানিয়েছেন এবং ‘গাজা উপত্যকার বিরুদ্ধে আগ্রাসন বন্ধ করার এবং ফিলিস্তিনি সমস্যার সমাধান খুঁজে বের করার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দিয়েছেন। 

এদিকে ইরানি ক্ষেপণাস্ত্র হামলার পর ইসরায়েল ‘যেকোনো পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত’ বলে জানিয়েছে।

দেশটির সামরিক মুখপাত্র রিয়ার অ্যাডমিরাল ড্যানিয়েল হাগারি বলেছেন, বিমানগুলো এখনও আকাশে টহল দিচ্ছে। এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেছেন, মার্কিন সামরিক বাহিনী ইসরাইলকে ইরানের ‘প্রায় সব ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র নামাতে’ সাহায্য করেছে।

রেডিওটুডে নিউজ/আনাম

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের