শনিবার,

১৫ জুন ২০২৪,

৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

শনিবার,

১৫ জুন ২০২৪,

৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

Radio Today News

ব্যাংক স্থানান্তরসহ ম্যানেজারের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ

গাইবান্ধা প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০০:৫৭, ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২২

Google News
ব্যাংক স্থানান্তরসহ ম্যানেজারের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ

গাইবান্ধায় রুপালী ব্যাংক শাখা ম্যানেজারের বিরুদ্ধে অনিয়ম, দুর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, অসদাচরণের অভিযোগ তুলে ব্যাংক স্থানান্তরের প্রতিবাদে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে সাধারণ গ্রাহকসহ এলাকাবাসী। এসময় প্রায় আধাঘন্টা বাদিয়াখালী-গাইবান্ধা শাখা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেন তারা।

বুধবার দুপুরের দিকে নুরুলগঞ্জ হাটে রুপালী ব্যাংক বাদিয়াখালী শাখার সামনে এই কর্মসূচিতে অংশ নেন কয়েকশ মানুষ।

মানববন্ধনে বক্তারা অভিযোগ করেন, দীর্ঘ ৪০ বছর ধরে নুরুলগঞ্জ হাট বাজারে রুপালী ব্যাংকটি কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। কিন্তু নতুন ম্যানেজার মো. আরিফ গ্রাহকদের সাথে বিভিন্ন সময় অসদাচরণ করেন।

ব্যাংকে আসলেও তিনি বেশিরভাগ সময় বাইরে অবস্থান করেন। এমনকি এই বাজারের ব্যবসায়ীদের নানা অজুহাতে ঋণসেবা থেকে বঞ্চিত করে আসছেন। ঋণের জন্য মোটা অঙ্কের ঘুষ দাবি করেছেন অনেক গ্রাহকের কাছে।

ব্যাংকের গ্রাহক স্বপন আহমেদ বলেন, আমি প্রতিমাসে এই ব্যাংকে প্রায় ৫-৭ লাখ টাকা লেনদেন করি। কিন্তু হঠাৎ করেই ব্যাংকটি এখন অন্যত্র গোপনে সরিয়ে নেয়ার সিদ্ধান্তে আমিসহ অনেক বিপাকে পড়েছি। এ বিষয়ে ব্যাংক কতৃপক্ষও আগে  তাদের সাথে কোন ধরণের আলোচনা করেনি।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, আমাদের বাজারের কোন ব্যবসায়ীকে ম্যানেজার ঋণ দিতে চান না। ঋণ নিতে গেলে মোটা অঙ্কের উৎকোচ দাবি করেন। এছাড়া অধিকাংশ সময় গ্রাহকদের সাথে অসদাচরণ করেন। মিজানুর রহমান মিলন নামে আরেক ব্যবসায়ী বলেন, দেশের বাইরে থেকে এই ব্যাংকের একাউন্টে আমার টাকা আসে। কিন্তু ব্যাংকটা অন্যত্র সরিয়ে নিলে আমার প্রতিষ্ঠান ছেড়ে আমাকে অন্যত্র গিয়ে লেনদেন করতে হবে।

এতে আমার মতো অনেক ব্যবসায়ী হয়রানি হবেন। রুপালী ব্যাংক বাদিয়াখালী শাখার সিনিয়র ম্যানেজার মোসাদ্দেক হোসেন, উর্ধতন কর্মকর্তাদের সিদ্ধান্ত মোতাবেক ব্যাংক শাখাটি অন্যত্র সরিয়ে নেয়ার প্রস্তাব দেয়া হয়েছে। সব কিছুই প্রক্রিয়াধীন আছে। আজ এলাকার বাসিন্দা ও গ্রাহকরা ব্যাংকের সমস্যা সমাধানের জন্য সহযোগিতার ঘোষনা দিয়েছেন বলে জেনেছি। আমরা গ্রাহকদের প্রস্তাবটি উর্ধতন কর্মকর্তাদের অবহিত করবো। এ বিষয়ে তারাই সিদ্ধান্ত নিবেন।

তবে অনিয়ম, দুর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতাসহ গ্রাহকদের সাথে অসদাচরণের বিষয়ে রুপালী ব্যাংক বাদিয়াখালী শাখা ম্যানেজার মো. আরিফ বলেন, আমাদের শাখাটি আগের চেয়ে লাভজনক অবস্থায় আছে। তবে অডিট টিম তাদের নিয়মিত কার্যক্রমের মাধ্যমে ব্যাংকটি অন্যত্র জমজমাট এলাকায় স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যা বিবেচনাধীন আছে। এখানে আমার কিছুই করার নাই। তবে বড় কোন ব্যক্তির মাধ্যমে তদবির করাতে পারলে হয়ত ব্যাংকের শাখা স্থানান্তর নাও হতে পারে।

তবে অনিয়ম, দুর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতাসহ গ্রাহকদের সাথে অসদাচরণের অভিযোগ অস্বীকার করেন তিনি।

রেডিওটুডে নিউজ/ইকে

সর্বশেষ

সর্বাধিক সবার কাছের